1. editor@jagratajanata24.com : editor :
  2. info@holyit.net : jjanata24 :
  3. admin@gmail.com : newsjjanata24 :
পর্যটকদের কাছে কুয়াকাটার আকর্ষণ একটুও কমেনি - জাগ্রত জনতা ২৪
মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর ২০২০, ০১:০৩ অপরাহ্ন
হেড লাইন :
গলাচিপায় অর্থের অভাবে চিকিৎসা করতে না পেরে রাস্তায় রাস্তায় ঘুরছে স্বপন দত্ত গলাচিপায় জরাজীর্ণ ঘরে অসহায় আনোয়ার হোসেন পিটিয়ে ও পুড়িয়ে হত্যা: আরও ২ জন গ্রেফতার পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটা পৌর নির্বাচন।। আওয়ামী লীগে সরব হাইব্রীড নেতাসহ হাফডজন প্রার্থী: বিএনপি নিশ্চুপ গভীর সমুদ্রে ডাকাতি! পাথরঘাটা থেকে আটক ৯ জামালপুরে আইডিইবি ৫০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন অনুষ্টিত যুবলীগ নেতা ও ইউপি চেয়ারম্যানের ওপর হামলার প্রতিবাদে আমতলীতে মানববন্ধন যুবলীগ নেতা ইউপি চেয়ারম্যানের উপর হামলার বিচারের দাবিতে বরগুনায় মানবন্ধন বিক্ষোভ মিছিল এম. বালিয়াতলী জনতার চোখে অ্যাড. নাজমুল ইসলাম নাসির কলাপাড়ায় মৎস্য গবেষনা ইনস্টিটিউটের কার্যক্রম পরিদর্শন করেছেন মৎস্য ও প্রানিসম্পদ মন্ত্রনালয়ের সচিব

পর্যটকদের কাছে কুয়াকাটার আকর্ষণ একটুও কমেনি

  • সর্বশেষ আপডেট : সোমবার, ২৬ অক্টোবর, ২০২০
  • ২৪ বার পঠিত

 

উত্তম কুমার হাওলাদার,কলাপাড়া(পটুয়াখালী)প্রতিনিধিঃ

দক্ষিনের নির্মল বাতাসে সৈকতে পর্যটকদের ছুটোছুটি ও উম্মাদনা। কেউ সমুদ্রের পনিতে গোসল করছেন, কেউ হেঁটে বেড়াচ্ছেন। আবার কেউবা ব্যস্ত সেলফি তোলায়। পর্যটন কেন্দ্র কুয়াকাটার আকর্ষণ একটুও কমেনি পর্যটকদের কাছে। করোনা ভাইরাসের ভয়কে জয় করে শারদীয় দূর্গাপূজার ছুটিতে সৈকতে বিরাজ করছে উৎসবমুখর পরিবেশ। তবে একই স্থানে দাঁড়িয়ে সূর্যোদয়-সূর্যাস্তের মনোলোভা দৃশ্য অবলোকন করা নতুন এক অনুভূতি এমনটাই জানিয়েছেন আগত পর্যটকরা। এদিকে পর্যটকদের নিরাপত্তা দিতে কাজ করছে ট্যুরিষ্ট পুলিশ।

সরেজমিনে সৈকতে গিয়ে দেখা গেছে, হৈ হুল্লোড়, খেলাধুলা আনন্দের সীমা নেই আগত পর্যটকদের মাঝে। সৈকতের জিরো পয়েন্ট, ইকোপার্ক, লেম্বুরচর, শুঁটকিপল্লী, মিশ্রীপাড়া বৌদ্ধমন্দির, রাখাইন মহিলা মার্কেটসহ আকর্ষণীয়সব স্পটগুলোতে পর্যটকদের আনাগোনা দেখা গেছে।
স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, প্রতি শুক্র ও শনিবার পর্যটকদের চাপ বেশি থাকে। এছাড়া বিষেশ কোন ছুটির দিনে এখানে পর্যটক আসে।

এ সময় হোটেল মোটেল গুলো অগ্রিম বুকিং হয়ে যায়। তবে শারদীয় দূর্গাপূজার ছুটিতে দূর-দূরান্ত থেকে এসব পর্যটক থেকে ছুটে এসেছে। এর ফলে পর্যটনমুখি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গুলোর মালিকরা ব্যস্ত সময় পার করছে।

পর্যটক শায়ন্তী বলেন, সৈকতে দাঁড়িয়ে দক্ষিনের নির্মল বাতাস সাবার কাছেই ভাল লাগার কথা। এর আগেও কয়েকবার কুয়াকাটায় এসেছি। কিন্তু আগের সেই সৌন্দর্য নেই। সৈকত ভেঙে ছোট হয়ে গেছে। চারদিকে ছড়িয়ে-ছিটিয়ে আছে ইট-সুরকির ভাঙা অংশ। এতে চলাফেরা করা বিপজ্জনক। এগুলো অপসারন করা প্রয়োজন বলে তিনি মনে করেন।

কুয়াকাটা ট্যুরিজম ম্যানেজমেন্ট এ্যাসেসিয়েসন কুটুম’র সিনিয়র সহ-সভাপতি হোসাইন আমির বলেন, মহামারি করোনা সময়কে উপক্ষা করে শারদীয় দূর্গাপূজার ছুটিতে দলবেধে এখানে ছুটে এসেছে পর্যটকরা।

কুয়াকাটা ইলিশ পার্কের পরিচালক রুমান ইমতিয়াজ তুষার বলেন,শারদীয় দূর্গাপূজার ছুটিতে কুয়াকাটায় বেশ পর্যটকদের আনাগোন বেড়ে গেছে। আমরাও চেষ্টা করছি পর্যটদের সেবা দিতে বলে তিনি জানিয়েছেন।

কুয়াকাটা ট্যুরিস্ট পুলিশ জোন’র ইনচার্জ ইনেসপেক্টর মো.মিজানুর রহমান বলেল, শারদীয় দূর্গাপূজার ছুটিতে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা না ঘটে, সে জন্য আমরা পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি।

এ জাতীয় আরো খবর
Developed by